কাঁচরাপাড়ার সুপ্রতিষ্ঠিত ব্যবসায়ী তথা সমাজসেবী সুদামা সিং কি এবার রাজনীতিতে??

অবতক খবর,৩১ ডিসেম্বর: কাঁচরাপাড়া অঞ্চলের একজন পরিচিত মুখ তথা প্রতিষ্ঠিত ব্যবসায়ী এবং সমাজসেবী সুদামা সিং। দীর্ঘ বছর ধরে তিনি ব্যবসার সঙ্গে যুক্ত রয়েছেন। তাঁর ব্যবসা তো রয়েছেই,তবে তিনি এখন আরও বেশি করে সমাজসেবামূলক কাজের সঙ্গে জড়িয়ে পড়েছেন। শুধু তাই নয়, বর্তমান শাসক দলের সঙ্গে বেশ ঘনিষ্ঠতা দেখা যাচ্ছে তাঁর। শাসকদলের বিভিন্ন কর্মসূচিতে তাঁর দেখা মিলছেই।

প্রথমদিকে রাজনীতির ময়দানে তাঁর দেখা না মিললেও ২০১৯ এর পর থেকে তিনি বেশ সখ্যতা গড়ে তুলেছেন শাসক দলের সঙ্গে। এর পেছনে কি রহস্য তা কেউই জানে না। তবে তিনি যে রাজনৈতিক ময়দানে একেবারে সক্রিয় তা চোখে পড়ছে সকলেরই। বীজপুরে তিনি একের পর এক কর্মসূচি করে চলেছেন।

এই সকল কর্মসূচিতে মন্ত্রী,বিধায়ক চেয়ারম্যান সহ অন্যান্য নেতৃত্বদের সঙ্গে তাঁর ওঠা-বসা লক্ষ্য করা যাচ্ছে। তাঁর ব্যবসাও চলছে, তিনি সমাজসেবাও করছেন এবং রাজনৈতিক ময়দানেও রয়েছেন। এত কিছুর মধ্যেও তিনি চাকলায় লোকনাথ বাবার যে মন্দির রয়েছে সেখানেও তিনি সক্রিয় রয়েছেন। দেখা যাচ্ছে মন্দিরের উন্নয়নে তিনি সক্রিয়তা দেখাচ্ছেন। কারণ তিনি লোকনাথ বাবার বড় ভক্ত।

তবে বীজপুরের অলিতে গলিতে এখন শুধুমাত্র সুদামা সিং এর নাম। কারণ সুদামা সিং-কে সম্প্রতি এমন জায়গায় দেখা গেছে যেখানে নেতা-কর্মীদের পৌঁছতে সময় লেগে যায়। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের সাথে চাকলায় যে কর্মীসভা হয়েছিল সেখানে তাঁকে দেখা গেছে। সেই ছবি দেখিয়েছে বড় বড় মিডিয়া হাউজ। অন্যদিকে সরকারি অনুষ্ঠান হোক কিংবা বেসরকারি কোন অনুষ্ঠান সুদামা সিং এর উপস্থিতি থাকছেই।

আর এইসব দেখেই বীজপুরের মানুষ বলছেন তবে কি সুদামা সিং আগামীতে সক্রিয় রাজনীতিতে প্রবেশ করতে চলেছেন! সুদামা সিং কি তবে বর্তমান শাসক দলের কোন পদের দাবিদার হতে চলেছেন! কারণ যেভাবে তাঁকে শাসক দলের সাথে দেখা যাচ্ছে তাতে রহস্যের গন্ধ পাচ্ছেন মানুষ।

তবে সুপ্রতিষ্ঠিত ব্যবসায়ী তথা সমাজসেবী সুদামা সিং আগামীতে কি পদক্ষেপ নেবেন? তিনি কি সক্রিয় রাজনীতির ময়দানে নামবেন? নাকি যেমন আছেন তেমনি থাকবেন?তা সময়ই বলবে।