সম্পত্তির কারণে মহিলাকে খুনের অভিযোগ প্রোমোটার এর বিরুদ্ধে

অবতক খবর,১৩ মেঃ সম্পত্তির কারণে মহিলাকে খুনের অভিযোগ প্রোমোটার এর বিরুদ্ধে,উত্তেজনা ব্যারাকপুর তেলিনিপাড়া এলাকায়,মৃতদেহ আটকে রেখে বিক্ষোভ বাসিন্দাদের।

ব্যারাকপুর দেবপুকুর এলাকার সাথী ঘোষ ও তার পরিবারের প্রচুর জমিজমা রয়েছে। আর সেই জমি পরিবারের লোকজনদের বুঝিয়ে প্রমোটিংয়ের জন্য নেয় এলাকার স্থানীয় প্রোমোটার বিধান রায়,।স্বাথী ঘোষের জায়গায় প্রোমোটিং এর জন্য তার পরিবারের লোকজনদের তেলিনিপাড়ায় একটি বাড়িতে ভাড়া করে রাখেন ঐ প্রোমোটার।বেশ কয়েকদিন ধরে সাথী ঘোষের কোন খোঁজ পাওয়া যাচ্ছিল না।তার নামে মোহনপুর থানায় নিখোঁজের ডাইরি করে তার পরিবারের লোকজন। অবশেষে আজ

বাড়ির ওপরের ঘর থেকে মৃত অবস্থায় নিখোঁজ সাথী ঘোষের মৃতদেহ উদ্ধার করে মোহনপুর থানার পুলিশ।স্থানীয় বাসিন্দাদের অভিযোগ প্রোমোটার বিধান রায় সাথী ঘোষ কে খুন করে দীর্ঘদিন ধরে রেখে দিয়েছে পচন ধরেছে শরীরে।ঘটনার পর থেকে পলাতক অভিযুক্ত ওই প্রোমোটার।পুলিশ এসে মৃতদেহ উদ্ধার করে নিয়ে যাওয়ার সময় মৃতদেহ আটকে রেখে বিক্ষোভ দেখায় এলাকার স্থানীয় বাসিন্দারা।ঘটনাকে কেন্দ্র করে ব্যাপক উত্তেজনা ছড়িয়েছে ব্যারাকপুর শিউলি গ্রাম পঞ্চায়েতের অন্তর্গত তেলনিপাড়া এলাকায়।ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে মোহনপুর থানার পুলিশ। শুধু তাই নয় নিজের ঘরে আরও তিন জন সাথীর মা বোন কে দীর্ঘদিন ধরে না খেতে দিয়ে রেখে দিয়েছিল এই বিধান এমনটাই অভিযোগ মৃত আত্মীয়দের।