গায়ক যখন যাযাবর/তমাল সাহা

নদীরা মা হয়ে গেলে সাঙ্গীতিক উচ্চারণে
তোমার জন্মদিনে নেচে ওঠে বিমুগ্ধ কলতানে…

গায়ক যখন যাযাবর
তমাল সাহা

যাযাবর হওয়া কি মুখের কথা
ক’জন হতে পারে তোমার মতো যাযাবর
যেখানে বিস্তীর্ণ দুপার জুড়ে
তুমি দুর্বার, রাখো মানুষের খবর!

নদী কি করে মা হয়
সেই তো শুধু জানে।
গঙ্গা আমার মা, পদ্মা আমার মা…
অপূর্ব উচ্চারণে
মা হয়ে বেজে ওঠে তার গানে।

নদীর প্রবাহ কিভাবে হয়
দুটি চোখের অশ্রুধারা!
মানুষের হাহাকার শুনে
নদীরাও উথাল পাথাল
বিষাদে আত্মহারা।

মানুষ মানুষের জন্য চাইবে সহানুভূতি
এই হবে মানুষের পরম আকুতি।
দোলা হে দোলা
ঘামে ভেজা মেহনতের গান—
অনন্য কন্ঠের হৃদয়ার্দ্র ধ্বনি
কর্ণকুহরে ব্যঞ্জনা তোলে
শুনেই বলে দেবে মানুষ সুজন …
ওরে! ভূপেন হাজারিকা উনি।