একটি বেসরকারি ডায়াগনস্টিক সেন্টারে রোগ নির্ণয় করতে এসে মৃত এক ব্যক্তি

অবতক খবর,১২ ডিসেম্বর: বড়োয়া থানা অন্তর্গত মথুরা গ্রামের বাসিন্দা প্রণব কুমার মন্ডল বয়স ৪৫ বছর। পারিবারিক সূত্রে জানা যায় বেশ কিছুদিন থেকে তিনি অসুস্থ ছিলেন । সেই সুবাদে বহরমপুরে একটি ডাক্তার দেখান । সেই ডাক্তারের কথামতো একটি বেসরকারি ডায়াগনস্টিক সেন্টারে কিছু পরীক্ষা করতে যান। এরপর সেই ডায়াগনস্টিক সেন্টার থেকে তার বাড়িতে খবর দেওয়া হয় তিনি অসুস্থ এবং তাকে মেডিকেল কলেজে ভর্তি করা হয়েছে।

পরবর্তীতে বাড়ির লোক ছুটে এলে সেই ডায়গনস্টিক সেন্টার তার কোন দায় নেয়নি এবং কোনরকম প্রেসক্রিপশন বা কাগজপত্র দিতে অস্বীকার করে পাশাপাশি মৃতের আত্মীয়দের কে কোনরকম সহযোগিতা করেনি বলেই অভিযোগ। এছাড়া পরিবারের লোকজন জানতে পারে হঠাৎ করে অসুস্থ হয়ে পড়ায় তাকে তাচ্ছিল্য ভাবে মুর্শিদাবাদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ফেলে আসা হয়েছে। এর ফলে ডায়াগনস্টিক সেন্টার এর সাথে মৃতের আত্মীয় বচসা বাধে। পরবর্তীতে মৃতের আত্মীয়রা পুলিশকে অভিযোগ করলে পুলিশ এসে সমস্ত বিষয়টি এবং সিসিটিভি ফুটেজ খতিয়ে দেখছে।

ঐ ব্যাক্তি কিভাবে মারা গেল তা নিয়েও আভিযোগ করেন পরিবারের লোকজন। এই রকম ঘটনার পেছনে দায়ী অভিযুক্তদের শাস্তির দাবিও জানান।